আজ বুধবার, ২৪ মে, ২০১৭

সদ্য প্রাপ্তঃ

*** যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্টকে সফরের আমন্ত্রণ বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রীর * সাত দফা দাবিতে উত্তরবঙ্গে পণ্যবাহী যানবাহনের ধর্মঘট আরও ২৪ ঘণ্টা বাড়ছে * যশোরের ঝিকরগাছা উপজেলায় বাস্তুহারা লীগের এক নেতাকে কুপিয়ে হত্যা, একজন আটক * সিনেটের ৩৫ জন শিক্ষক প্রতিনিধি নির্বাচনে ভোট দিচ্ছেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষকরা * সুন্দরবনে মধু সংগ্রহ করতে গিয়ে বাঘের থাবায় মৌয়ালের মৃত্যু * সৌদি আরবে শেখ হাসিনা ও ডোনাল্ড ট্রাম্পের মধ্যে শুভেচ্ছা বিনিময়

Bangladesh Manobadhikar Foundation

Khan Air Travels

নাউরুতে অস্ট্রেলিয়ার আশ্রয় শিবিরে বাংলাদেশির মৃত্যু

আন্তর্জাতিক ডেস্ক | তারিখঃ ১২.০৫.২০১৬

প্রশান্ত মহাসাগরীয় দ্বীপ দেশ নাউরুতে অস্ট্রেলিয়ার শরণার্থী শিবিরে আশ্রিত এক বাংলাদেশি যুবকের মৃত্যু হয়েছে বলে আন্তর্জাতিক সংবাদমাধ্যমগুলো জানিয়েছে।

রয়টার্সের এক প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, রাকিব নামে ২৬ বছরের ওই বাংলাদেশি ঘুমের বড়ি খেয়ে আত্মহত্যা করেছেন বলে শরণার্থীদের অধিকার নিয়ে কর্মরত একটি সংগঠন দাবি করলেও এ বিষয়ে কোনো বক্তব্য দিতে অস্বীকার করেছে অস্ট্রেলিয়া কর্তৃপক্ষ। অবৈধভাবে সমুদ্রপথে আসা আশ্রয়প্রার্থীদের পাপুয়া নিউ গিনির মানুস দ্বীপ অথবা নাউরুর আশ্রয় শিবিরগুলোতে পাঠিয়ে দেয় অস্ট্রেলিয়া। ওই সব আশ্রয় শিবিরের বাজে পরিস্থিতি এবং সেখানে নির্যাতনের খবরে বিভিন্ন মানবাধিকার সংগঠনের পাশাপাশি জাতিসংঘেরও সমালোচনা রয়েছে। রাকিবকে নিয়ে কয়েক সপ্তাহের মধ্যে নাউরুতে আশ্রিতদের মধ্যে এটি দ্বিতীয় মৃত্যুর ঘটনা, যেখান থেকে বেরোতে বিক্ষোভের অংশ হিসেবে গায়ে আগুন দিয়ে আত্মাহুতির ঘটনা ঘটছে। সেখানে দীর্ঘ আটকাবস্থার প্রতিবাদে এর আগে ২৩ বছর বয়সী এক ইরানি যুবক এবং ২১ বছরের এক সোমালি যুবতী গায়ে আগুন দেয়। এতে ওই যুবকের মৃত্যু হয়েছে। সোমালি নারী প্রাণে বেঁচে গেলেও এখনও তার অবস্থা আশঙ্কাজনক। রাকিবের বিষয়ে অস্ট্রেলিয়ার অভিবাসন ও সীমান্তরক্ষা বিভাগের এক বিবৃতিতে বলা হয়েছে, বুকে ব্যথা নিয়ে ৯ মে নাউরুর হাসপাতালে ভর্তি হয়েছিলেন ওই ব্যক্তি। হাসপাতালে তার চিকিৎসা চলছিল। কিন্তু কয়েক দফা কার্ডিয়াক অ্যারেস্টের পর আজ সকালে তিনি মারা যান। তবে তার অসুস্থতার বিস্তারিত বলতে বা ঘুমের বড়িতে তার মৃত্যুর অভিযোগ নিয়ে কোনো বক্তব্য দিতে অস্বীকার করেছেন অস্ট্রেলিয়ার এই দপ্তরের এক মুখপাত্র। এ বিষয়ে নাউরু কর্তৃপক্ষেরও কোনো বক্তব্য পাওয়া যায়নি।