Print
বিভাগঃ জাতীয়

নিজামী ফাঁসি ইস্যুতে ইউরোপের ওপর তুরস্কের ক্ষোভ

জাতীয় ডেস্ক | তারিখঃ ১৬.০৫.২০১৬

বাংলাদেশ থেকে নিজেদের রাষ্ট্রদূতকে প্রত্যাহার করেই খান্ত দেননি তুরস্কের প্রেসিডেন্ট রিসেপ তাইয়েপ এরদোয়ান ।

বাংলাদেশে মানবতাবিরোধী অপরাধে জামায়াতে ইসলামীর নেতা মতিউর রহমান নিজামীর মৃত্যুদণ্ড কার্যকর হবার পর বিষয়ে ইউরোপের নীরবতার কড়া সমালোচনা ও ক্ষোভ প্রকাশ করেছেন তিনি। রোববার এক টিভি ভাষণে এরদোয়ান নিজামীর মৃত্যুদণ্ড কার্যকর হবার পর ইউরোপের পক্ষ থেকে কোনো প্রতিক্রিয়া না থাকার সমালোচনা করে বলেন, এটি ইউরোপের দ্বৈত নীতির প্রকাশ।তিনি ক্ষোভের সাথে প্রশ্ন করেন,  যদি ইউরোপ রাজনৈতিক মৃত্যুদণ্ড কার্যকরের বিরোধী হয় থাকে, তাহলে নিজামীর মৃত্যুদণ্ড কার্যকরের বিষয়ে কেন ইউরোপ নীরব?গত মঙ্গলবার ১৯৭১ সালের স্বাধীনতাযুদ্ধের সময় মানবতাবিরোধী অপরাধের দায়ে মতিউর রহমান নিজামীর মৃত্যুদণ্ড কার্যকর করা হয়। এরপর বৃহস্পতিবার তুরস্ক আলোচনার জন্য তাদের ঢাকাস্থ দূতকে আঙ্কারায় ডেকে পাঠায়।বাংলাদেশ যুদ্ধাপরাধীদের বিচার শুরু করার পর থেকে যেসব দেশ এর বিরুদ্ধে অবস্থান নেয় তুরস্ক তার অন্যতম। এর আগে তুরস্কের সাবেক প্রেসিডেন্ট আহমেত গুল জামায়াতের সাবেক আমীর গোলাম আযমকে যেন ফাঁসির দণ্ড দেওয়া না হয় তার অনুরোধ জানিয়েছিলেন।