আজ শুক্রবার, ২৬ মে, ২০১৭

সদ্য প্রাপ্তঃ

*** যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্টকে সফরের আমন্ত্রণ বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রীর * সাত দফা দাবিতে উত্তরবঙ্গে পণ্যবাহী যানবাহনের ধর্মঘট আরও ২৪ ঘণ্টা বাড়ছে * যশোরের ঝিকরগাছা উপজেলায় বাস্তুহারা লীগের এক নেতাকে কুপিয়ে হত্যা, একজন আটক * সিনেটের ৩৫ জন শিক্ষক প্রতিনিধি নির্বাচনে ভোট দিচ্ছেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষকরা * সুন্দরবনে মধু সংগ্রহ করতে গিয়ে বাঘের থাবায় মৌয়ালের মৃত্যু * সৌদি আরবে শেখ হাসিনা ও ডোনাল্ড ট্রাম্পের মধ্যে শুভেচ্ছা বিনিময়

Bangladesh Manobadhikar Foundation

Khan Air Travels

আসছে ভয়াবহ মেগা-ভূমিকম্প, মরবে ৪ কোটি মানুষ!

বিডিনিউজডেস্ক ডেস্ক | তারিখঃ ৩১.১২.২০১৬

আসছে ভয়াবহ মেগা-ভূমিকম্প, যার তাণ্ডবে মৃত্যু হবে চার কোটি মানুষের এবং দ্বিখণ্ডিত হবে দু'টি মহাদেশ। কোনও জ্যোতিষী নয়, পূর্বাভাস করলেন এক পরমাণু বিজ্ঞানী।

২০১৬ সাল জুড়ে বিশ্বের বিভিন্ন প্রান্তে ভূমিকম্পের তাণ্ডবে অভাবনীয় ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে। মারা গিয়েছেন কয়েক লক্ষ মানুষ, গবাদি পশু। বিপুল পরিমাণে সম্পত্তিও ধ্বংস হয়েছে। কিন্তু এ সবে মহাপ্রলয়ের সূত্রপাত, জানিয়েছেন পরমাণু বিজ্ঞানী মেহরান কেশে। জন্মসূত্রে ইরানের বাসিন্দা এই পরমাণু বিশেষজ্ঞ লন্ডন বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রাক্তন ছাত্র। বর্তমানে নেদারল্যান্ডসে কেশে ফাউন্ডেশন নামে একটি অলাভজনক প্রতিষ্ঠান চালান। তার প্রধান দপ্তর বেলজিয়ামে।

গত সেপ্টেম্বর মাসে নিজস্ব পূর্বাভাসের ভিত্তিতে একটি ভিডিয়ো প্রকাশ করেন ডক্টর কেশে। তাঁর দাবি, সম্ভবত নতুন বছরেই বিশ্বে এক ভয়াবহ মহাভূমিকম্প ঘটতে চলেছে, যার জেরে উত্তর ও দক্ষিণ আমেরিকা মহাদেশ বিচ্ছিন্ন হতে চলেছে। মহাকম্পনের জেরে সৃষ্ট একাধিক সুনামি এশিয়া ও উত্তর আমেরিকা মহাদেশের বিভিন্ন স্থানে আছড়ে পড়বে, যার জেরে অন্তত ২ কোটি মানুষের মৃত্যু হবে।

ডক্টর কেশের মতে, মহাভূমিকম্প প্রথম ঘটবে দক্ষিণ আমেরিকায়। তাঁর দাবি, কিছু কিছু অঞ্চলে রিখটার স্কেলে এই কম্পনের মাত্রা ১০ থেকে ১৬ থাকবে, এমনকি কয়েকটি অঞ্চলে তা ২০ থেকে ২৪-ও হতে পারে।

পরমাণু বিজ্ঞানী ডক্টর কেশে জানিয়েছেন, আগামী কয়েক মাসে উত্তর চিনে একাধিক ভূমিকম্প হবে। মহাভূমিকম্পের আঘাতে মেক্সিকো ও মেক্সিকো উপকূল সম্পূর্ণ ধ্বংস হবে। তার জেরে সুনামির দৈত্যাকৃতি ঢেউ আছড়ে পড়বে চিন, জাপান ও ক্যারিবিয়ান সমুদ্রতটে।

কেশে জানিয়েছেন, এই পূর্বাভাস একান্ত নিজস্ব। তবে সম্প্রতি বিশ্বজুড়ে য়ে হারে ভূমিকম্পের প্রবণতা বাড়ছে, তাতে তাঁর কথা উড়িয়ে দিতে পারছেন না অনেকেই।