Print

পর্নে আসক্ত ব্যক্তিরা কেমন হয়?

বিডিনিউজডেস্ক ডেস্ক | তারিখঃ ১৫.০৫.২০১৬

সম্প্রতি কেমন ধরনের মানুষরা পর্নোগ্রাফিতে আসক্ত তা নিয়ে একটি গবেষণা করা হয়।

এতে দেখা যায়, যারা পর্ন দেখে তাদের অনেকেই যথেষ্ট ধর্মকর্ম করে। এক প্রতিবেদনে বিষয়টি জানিয়েছে ইনডিপেনডেন্ট। সাম্প্রতিক এ গবেষণায় দেখা গেছে, যারা সপ্তাহে একাধিকবার পর্নোগ্রাফি দেখে তারা পরবর্তীতে অন্যদের তুলনায় বেশি ধার্মিক হয়ে যায়। পর্নোগ্রাফিতে আক্রান্তদের মাঝে অনেকেই পরবর্তীতে ধার্মিক হয়ে যায়, যার কারণ নিয়ে অনুসন্ধিৎসু হয়ে উঠেছিলেন গবেষকরা। এতে জানা যায়, পর্নোগ্রাফির সঙ্গে এ অদ্ভুত সম্পর্কের কথা। গবেষকরা ধারণা করছেন, পর্নোগ্রাফি দেখার কারণে অনেকেই অপরাধবোধে ভোগে। আর এ কারণেই তাদের মাঝে পরবর্তীতে হয়ত ধর্মপালনের আগ্রহ দেখা দেয়।

এ বিষয়ে গবেষণাটি করেছেন স্যামুয়েল পেরি। তিনি ১৩০০ মার্কিনির মাঝে একটি জরিপ চালান। এতে প্রায় ছয় মাস ধরে তিনি বিভিন্ন ব্যক্তির পর্নোগ্রাফি দেখা ও ধর্মীয় কার্যক্রমের ওপর নানা তথ্য অনুসন্ধান করেন। ড. পেরি বলেন, 'যারা পর্নোগ্রাফি ব্যবহার করেন সবচেয়ে বেশিবার তাদের প্রার্থনা ও ধর্মীয় কার্যক্রমের সংখ্যাও বেশি। যারা মধ্যমাত্রায় পর্নোগ্রাফি ব্যবহার করে তাদের তুলনায় এ পার্থক্য বেশি।' তিনি আরও বলেন, 'বিশেষ করে যারা পর্নোগ্রাফি প্রতিসপ্তাহে বা তার বেশিবার দেখে ২০০৬ সালের এক গবেষণায় তাদের প্রার্থনার হার বেশি দেখা যায়, যা ২০১২ সালের গবেষণায় আরও কম পাওয়া গিয়েছিল।' এ গবেষণা প্রতিবেদনে বহু মানুষই আশ্চর্য হয়েছেন। কারণ সাধারণত ধর্মীয় কার্যক্রমে যারা জড়িত, তাদের মাঝে পর্নোগ্রাফি দেখার হার কম হবে বলেই অনেকের ধারণা ছিল। এ গবেষণার ফলাফল প্রকাশিত হয়েছে 'জার্নাল অব সেক্স রিসার্চ'-এ। তবে গবেষকরা আরও জানিয়েছেন, যারা জীবনে একবারও পর্ন দেখেনি, তারা অন্যদের তুলনায় বেশি ধার্মিক ও তারা কখনোই তাদের ভাগ্য বিষয়ে অনিশ্চিত নন।