আজ শুক্রবার, ২৪ নভেম্বর, ২০১৭

সদ্য প্রাপ্তঃ

*** ময়মনসিংহে সুটকেসের ভেতর যুবকের লাশ * ঢাবি অধিভুক্ত ৭ কলেজের মাস্টার্স পরীক্ষা স্থগিত * দিনাজপুরে বজ্রপাতে নিহত ৬ * দক্ষিণ-পূর্ব এশিয়ায় ছড়িয়ে পড়ছে 'সুপার ম্যালেরিয়া' * রিয়ালের পথের ইতি টানতে চান বেনজেমা * মধ্যবাড্ডায় অগ্নিকাণ্ডে মায়ের মৃত্যু, ২ সন্তান দগ্ধ * পূর্ণাঙ্গ কমিটি নেই: বাড়ছে ক্ষোভ, ঝিমিয়ে পড়া

Bangladesh Manobadhikar Foundation

Khan Air Travels

বিডিনিউজডেস্ক ডেস্ক | তারিখঃ ১৪.১১.২০১৭

বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়া শেখ হাসিনার অধীনে নির্বাচনে না যাওয়ার ঘোষণা দিয়ে ভূতের সরকার প্রতিষ্ঠার ষড়যন্ত্র

করছেন বলে মন্তব্য করেছেন তথ্যমন্ত্রী হাসানুল হক ইনু। মঙ্গলবার সচিবালয়ে নিজ দফতরে ১২ নভেম্বরের রাজধানীর সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে খালেদা জিয়ার দেয়া ভাষণের প্রতিক্রিয়ায় তথ্যমন্ত্রী এ মন্তব্য করেন।

তিনি বলেন, খালেদা জিয়া পরিষ্কার বলেছেন, শেখ হাসিনার অধীনে নির্বাচন করবেন না। তিনি কখনও সহায়ক সরকারের কথা বলেছেন, কখনও নিরপেক্ষ সরকারের কথা বলেছেন, কখনও নির্দলীয় সরকারের কথা বলেছেন। শেখ হাসিনার অধীনে নির্বাচন না করার ঘোষণার মধ্যে দিয়ে তিনি কার্যত ভূতের সরকারের অধীনে নির্বাচন করার কথা বলেছেন।

তিনি আরও বলেন, শেখ হাসিনার অধীনে নির্বাচন না করার ঘোষণা হচ্ছে সংবিধানের অধীনে নির্বাচন না করার ঘোষণা। এর মানে হচ্ছে উনি (খালেদা জিয়া) দেশকে সংঘর্ষের দিকে, অস্বাভাবিক পথে ঠেলে দেয়ার চক্রান্তের জাল বুনলেন।

তথ্যমন্ত্রী বলেন, বেগম জিয়া সংবিধানের অধীনে নির্বাচন চান না, উনি কার্যত ভূতের সরকার প্রতিষ্ঠা করতে চান। যা বাংলাদেশের রাজনীতির জন্য অত্যন্ত দুর্ভাগ্যজনক হবে। তিনি বলেন, খালেদা জিয়া বিদেশ থেকে আসার পর আশা করেছিলাম সোহরাওয়ার্দী উদ্যানের জনসভায় আগুন সন্ত্রাসের জন্য, মানুষ পোড়ানোর জন্য এবং বিভিন্ন অপরাধীদের রাজনৈতিক আশ্রয় দেয়ার জন্য জাতির কাছে মাফ চাইবেন। রাজাকার, জঙ্গি, যুদ্ধপরাধী এবং জামায়াতকে পরিহার করার ঘোষণাসহ আগামী নির্বাচন নিয়ে আরও গঠনমূলক বক্তব্য দেবেন। তবে সে আশা পূরণ হয়নি। তিনি জাতির কাছে মাফ চাননি। রাজাকার, জঙ্গিদের পরিহারের ঘোষণাও দেননি। উল্টো তিনি নিজের, ছেলে ও পরিবার পরিজনসহ প্রকাশ্যে সামরিক শাসন, সামরিকতন্ত্র, জঙ্গি-সন্ত্রাস, টাকা পাচারকারীদের পক্ষে সাফাই গেয়েছেন। এটা অত্যন্ত দুঃখজনক।