Print

অভিনব প্রতিবাদ জানাতে গিয়ে জেল হাজতে চেয়ারম্যানপ্রার্থী

বিডিনিউজডেস্ক ডেস্ক | তারিখঃ ১৯.০৩.২০১৬

ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে বরিশালের মুলাদী উপজেলার কাজীরচর ইউনিয়নে আওয়ামী লীগের বিদ্রোহী চেয়ারম্যান প্রার্থী ইঞ্জিনিয়ার ইউসুফ আলী হাওলাদার ভোট চুরির আশঙ্কায় অভিনব প্রতিবাদ করতে গিয়ে এখন বরিশাল কেন্দ্রীয় কারাগারে।

গত শুক্রবার নিজ বাড়িতে কবর খুঁড়ে আ’লীগের বিদ্রোহী চেয়ারম্যান প্রার্থী ইঞ্জিনিয়ার ইউসুফ আলী হাওলাদার বলেন, নির্বাচনে কারচুপি হলে তিনি আত্মহত্যা করবেন। এ ঘটনায় পুলিশ শুক্রবার বিকেলে তাকে আটক করে শনিবার দুপুরে আদালতের মাধ্যমে জেলহাজতে প্রেরণ করেছে।
জানা গেছে, উপজেলা আ’লীগের সহসভাপতি ইউসুফ আলী হাওলাদার দলীয় মনোনয়ন লাভের আশায় দীর্ঘদিন প্রচার প্রচারণা চালান। পরবর্তীতে তিনি দলীয় মনোনয়ন না পেয়ে বিদ্রোহী প্রার্থী হিসেবে আনারস প্রতীক নিয়ে প্রচার-প্রচারণা শুরু করেন। সম্প্রতি দলীয় পদ থেকে তাকে বহিস্কার করা হয়।
নাম প্রকাশ না করার শর্তে ইঞ্জিনিয়ার ইউসুফ আলীর একাধিক সমর্থক জানান, আগামী ২২ মার্চ নৌকা প্রার্থীর সমর্থকেরা জোড়পূর্বক ভোট পিটিয়ে নিতে পারেন। আর যদি ভোট পিটিয়ে নেয়া হয় তাহলে তিনি (ইউসুফ) স্বেচ্ছায় ২২ মার্চ আত্মহত্যা করার হুমকি দিয়ে শুক্রবার বিকেলে কাফনের কাপড় পরে নিজ বাড়ির সামনে কবর খুড়েন।
সূত্রমতে, খবর পেয়ে ওইদিন সন্ধ্যায় উপজেলা চেয়ারম্যান তরিকুল ইসলাম মিঠু, উপজেলা নির্বাহী অফিসার ও মুলাদী থানার ওসি মতিয়ার রহমান ঘটনাস্থলে পৌঁছে ইঞ্জিনিযার ইউসুফ আলীকে নিরাপদে রাখার জন্য আটক করে থানায় নিয়ে আসেন। এ খবর সর্বত্র ছড়িয়ে পরলে ইউসুফ আলীর সমর্থকেরা ওইদিন রাত আটটার দিকে বরিশাল-মুলাদী সড়কের কাজীরচর এলাকার সড়কের ওপর অবস্থান করে বিক্ষোভ প্রদর্শন করতে থাকেন। ফলে প্রায় দু’ঘন্টা ওই সড়ক দিয়ে সকল প্রকার যানবাহন চলাচল বন্ধ হয়ে যায়। খবর পেয়ে বরিশাল থেকে অতিরিক্ত পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌঁছে লাঠিচার্জ ও টিয়ারসেল নিক্ষেপ করে সড়ক অবরোধমুক্ত করেন।
মুলাদী থানার ওসি মতিয়ার রহমান ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে বলেন, ইসলাম পরিপন্থী কর্মকান্ডের মাধ্যমে এলাকায় অপপ্রচার করে বিভ্রান্তি সৃষ্টি ও নির্বাচনী আচরনবিধি ভঙ্গের অভিযোগে ইঞ্জিনিয়ার ইউসুফ আলীর বিরুদ্ধে মামলা দায়েরের পর শনিবার দুপুরে আদালতের মাধ্যমে তাকে জেলহাজতে প্রেরণ করা হয়।
এ ব্যাপারে কাজীরচর ইউনিয়নের আ’লীগ মনোনীত নৌকা মার্কার প্রার্থী মোঃ মন্টু বিশ্বাস বলেন, আমার জনপ্রিয়তায় ঈর্শ্বান্বিত হয়ে নির্বাচন নিয়ে অপপ্রচার ও বাঁধাগ্রস্থ করাসহ সরকারের ভাবমুর্তি ক্ষুন্ন করার জন্য ইঞ্জিনিয়ার ইউসুফ আলী কবর খোড়ার নাটক সাজিয়েছিলেন। তার কোনো সমর্থককে নয়; বরং আমার সমর্থকদের বিভিন্ন সময় তিনি (ইউসুফ) বিভিন্ন ধরনের হুমকি দিয়ে আসছিলেন।