Bangladesh Manobadhikar Foundation

Khan Air Travels

Premier Bank Ltd

৪ দেশে যান চলাচল চুক্তির অনুসমর্থন
জাতীয় ডেস্ক | তারিখঃ  ২৪.০৮.২০১৫

বাংলাদেশে, ভারত, ভুটান ও নেপালের মধ্যে সড়কপথে যাত্রী ও পণ্যবাহী যান চলাচল সংক্রান্ত খসড়া চুক্তির অনুসমর্থনের প্রস্তাব অনুমোদন করেছে মন্ত্রিসভা।


সোমবার প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সভাপতিত্বে মন্ত্রিসভায় এ প্রস্তাব অনুমোদন করা হয়। ৪ দেশীয় সড়ক যোগাযোগ চুক্তির এই রূপরেখায় বাংলাদেশ থেকে ভারত হয়ে নেপাল ও ভুটান যাওয়ার জন্য ৩টি রুটের কথা বলা হয়েছে। এগুলো হচ্ছে- ঢাকা-শিলং-গুয়াহাটি, ঢাকা-বুড়িমারী- চেংরাবান্দা, ঢাকা-বাংলাবান্ধা-জলপাইগুড়ি-কাঁকরভিটা। মন্ত্রিপরিষদ বিভাগ সূত্রে এ তথ্য জানা গেছে।
এদিকে, চুক্তির রূপরেখা অনুযায়ী যাত্রীবাহী বাস, ভাড়া করা গাড়ি এবং ব্যক্তিগত গাড়ি চলাচল করতে পারবে। যাত্রীবাহী বাসের ক্ষেত্রে বর্তমানে বাংলাদেশ-ভারতের মধ্যে চলাচলকারী বাসের মতোই দীর্ঘমেয়াদি অনুমতিপত্র নিতে হবে। ব্যক্তিগত যানবাহনের ক্ষেত্রে সংশ্লিষ্ট ইমিগ্রেশন সার্ভিস থেকে ফরম পূরণ করে তাৎক্ষণিক অনুমোদন নেয়া যাবে। পর্যটন, শিক্ষা সফর, চিকিৎসাসেবা, তীর্থযাত্রার জন্য ব্যক্তিগত গাড়ি ব্যবহার করা যাবে। যাত্রীবাহী বাস বাণিজ্যিকভিত্তিতে যাত্রী পরিবহন করবে।
রূপরেখায় আরও বলা হয়েছে, পরীক্ষামূলকভাবে পণ্য পরিবহনের ক্ষেত্রে পণ্যবাহী কনটেনার বহন করা ট্রাক ও ট্রেইলার চলাচল করতে পারবে। এক্ষেত্রেও যানবাহনকে প্রয়োজনীয় অনুমতিপত্র নিতে হবে। চালকের ভ্রমণ সংক্রান্ত দলিলাদি থাকতে হবে।
প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সভাপতিত্বে মন্ত্রিসভার নিয়মিত বৈঠকে চলতি বছরের গত ৮ জুন এ চুক্তির খসড়ার অনুমোদন দেয়া হয়। এরপর গত ১৫ জুন ভুটানের রাজধানী থিম্পোতে মন্ত্রী পর্যায়ের বৈঠকে বাংলাদেশ, ভারত, ভুটান ও নেপালের মধ্যে যাত্রী, ব্যক্তিগত ও পণ্যবাহী যান চলাচল নিয়ন্ত্রণের জন্য মোটরযান চুক্তি স্বাক্ষর করা হয়। ভবিষ্যতে এই চার দেশের সম্মতিতে যোগাযোগে অন্য যে কোন দেশের সঙ্গে যুক্ত হওয়ার সুযোগও চুক্তিতে রাখা হয়েছে।