Print

পিরোজপুরে স্বামী হত্যার দায়ে স্ত্রীসহ ৪ জনের ফাঁসি

বিডিনিউজডেস্ক ডেস্ক | তারিখঃ ০৪.০৫.২০১৬

পিরোজপুরের মানিক মাঝি হত্যার ছয় বছর পর তার স্ত্রীসহ চারজনকে মৃত্যুদণ্ড দিয়েছে আদালত, যে মামলার বিচারে সাক্ষ্য দিয়েছে ওই দম্পতির দুই সন্তান।

প্রত্যেক দণ্ডিতকে ৫০ হাজার টাকা করে জরিমানাও করা হয়েছে। আজ বুধবার পিরোজপুরের জেলা ও দায়রা জজ মো. গোলাম কিবরিয়া এ রায় ঘোষণা করেন।    দণ্ডিতরা হলেন মানিক মাঝির স্ত্রী শিউলী বেগম, আসাদ মাঝি, বেল্লাল গাজী ও গাজী ফরিদ আহম্মেদ। এদের মধ্যে ফরিদ আহম্মেদ মামলা চলাকালে মারা গেছেন। রায় ঘোষণার সময় শিউলি বেগম আদালতে উপস্থিত ছিলেন। অপর দুইজন পলাতক রয়েছেন। মামলার নথি থেকে জানা যায়, শিউলির অনৈতিক সম্পর্কের জেরে মানিক মাঝির সঙ্গে তার কলহ চলছিল। এর জেরে ২০১০ সালের ২৫ মে রাতে তিন সহযোগী নিয়ে শিউলি বেগম মানিক মাঝিকে কুপিয়ে হত্যা করেন। ওই আদালতের পিপি খান মোহাম্মদ আলাউদ্দিন বলেন, ঘটনার পরদিন নিহতের ছোটভাই মিজানুর রহমান জিয়ানগর থানায় মামলা করেন। ওই মামলায় মানিক-শিউলি দম্পতির দুই শিশু সন্তান সাক্ষ্য দেয় বলে জানান আলাউদ্দিন। তাদের দুই ছেলে মাহিম (১৪) ও মাহির (১২) রায়ের প্রতিক্রিয়ায় সন্তোষ প্রকাশ করেছে।