আজ বুধবার, ২৩ আগস্ট, ২০১৭

সদ্য প্রাপ্তঃ

*** সৌদি দূতাবাস কর্মকর্তা খালাফ হত্যা মামলায় আপিল বিভাগের রায় ১০ অক্টোবর * বন্যায় টাঙ্গাইলে সেতুর সংযোগ সড়কে ধস; উত্তর ও দক্ষিণাঞ্চলের সঙ্গে ঢাকার রেলযোগাযোগ বন্ধ * রাজারবাগে এক নারী কনস্টেবলকে ধর্ষণের অভিযোগে তার এক সহকর্মী গ্রেপ্তার * কোটালীপাড়ায় হাসিনাকে হত্যাচেষ্টার মামলায় ফায়ারিং স্কোয়াডে ১০ আসামির মৃত্যুদণ্ডের রায় * সৌদি দূতাবাস কর্মকর্তা খালাফ হত্যা মামলায় আপিল বিভাগের রায় ১০ অক্টোবর * বন্যায় টাঙ্গাইলে সেতুর সংযোগ সড়কে ধস; উত্তর ও দক্ষিণাঞ্চলের সঙ্গে ঢাকার রেলযোগাযোগ বন্ধ * রাজারবাগে এক নারী কনস্টেবলকে ধর্ষণের অভিযোগে তার এক সহকর্মী গ্রেপ্তার * কোটালীপাড়ায় হাসিনাকে হত্যাচেষ্টার মামলায় ফায়ারিং স্কোয়াডে ১০ আসামির মৃত্যুদণ্ডের রায়

Bangladesh Manobadhikar Foundation

Khan Air Travels

অপসারণ ক্ষমতা সংসদ পেলে সংবিধানের ক্ষতি হবে

বিডিনিউজডেস্ক ডেস্ক | তারিখঃ ২৯.০৪.২০১৬

দলমত নির্বিশেষে সংবিধান সমুন্নত রাখতে আইনজীবীদের প্রতি আহ্বান জানিয়েছেন সংবিধানপ্রণেতা ও গণফোরামের সভাপতি ড. কামাল হোসেন।

তিনি বলেছেন, বিচারপতিদের অপসারণ করার ক্ষমতা সংসদকে দেওয়া হলে বিচার ও সংবিধানের অপূরণীয় ক্ষতি হবে।

গতকাল বৃহস্পতিবার রাতে চট্টগ্রাম আইনজীবী সমিতির নবনির্বাচিত কমিটির অভিষেক অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে এ মন্তব্য করেন ড. কামাল হোসেন।

আইনজীবী সমিতি মিলনায়তনে অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন সংগঠনের সভাপতি কফিল উদ্দিন চৌধুরী। অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য দেন চট্টগ্রামের ভারপ্রাপ্ত জেলা ও দায়রা জজ সিরাজউদ্দৌলা কুতুবী, মহানগর দায়রা জজ মো. নূরুল হুদা, সুপ্রিম কোর্ট আইনজীবী সমিতির সাধারণ সম্পাদক এ এম মাহবুব উদ্দিন খোকন, বার কাউন্সিল সদস্য ইব্রাহিম হোসেন চৌধুরী বাবুল।

প্রধান অতিথির বক্তব্যে ড. কামাল হোসেন বলেন, ‘একজন বিচারকের যদি রায় বা আদেশ দেওয়ার আগে তাঁর চাকরি নিয়ে ভাবতে হয়, তাহলে সেখানে স্বাধীনতা থাকবে না।’

বিচার বিভাগে হস্তক্ষেপের অর্থ সংবিধানে হস্তক্ষেপ উল্লেখ করে সংবিধান রক্ষায় আইনজীবীদের ভূমিকা রাখার আহ্বান জানান ড. কামাল হোসেন। তিনি বলেন, রায় দেওয়ার জন্য আশঙ্কা করবেন না আমাকে সরিয়ে দেওয়া হতে পারে। এটা মৌলিক বিষয়, কেউ যদি মনে করে যে সরকারের বিরুদ্ধে রায় গেলে আমাকে সরিয়ে দিতে পারে; তখন তো সে স্বাধীনভাবে রায় দেওয়ার ক্ষমতা হারিয়ে ফেলবে। রায়ের বিরুদ্ধে আপিলে যেতে পারে কিন্তু সরিয়ে দেওয়া যাবে না।