মুদ্রণ

আন্তর্জাতিক ডেস্ক  | তারিখঃ  ২১.০৮.২০১৫

প্রধানমন্ত্রী অ্যালেক্সিস সাইপ্রাস অবশেষে গুঞ্জনকে সত্যি করে পদত্যাগের ঘোষণা দিলেন গ্রিসের চলতি বছর জানুয়ারিতেই নির্বাচিত হয়ে প্রধানমন্ত্রীর দায়িত্ব গ্রহণ করেছিলেন সাইপ্রাস।

কিন্তু নিজ দলের কট্টরপন্থিদের বিরোধিতার মুখে পড়েছেন। তাদের বিরোধীতার কারণে সংসদে সংখ্যাগরিষ্ঠতা হারানোয় শেষ অব্দি পদত্যাগের ঘোষণা দিতে বাধ্য হয়েছেন তিনি। মূলত আন্তর্জাতিক ঋণদাতাদের সঙ্গে বেইলআউট চুক্তির বিষয়টি নিয়েই নিজ দল থেকে বিরোধীতার মুখে পড়েছেন আলেক্সিস সাইপ্রাস। যদিও এই চুক্তির আওতায় বৃহস্পতিবারই ১৩ বিলিয়ন ইউরোর (১৪.৫ বিলিয়ন মার্কিন ডলার) প্রথম কিস্তি পেয়েছে গ্রিস। এতে করে ইউরোপের কেন্দ্রীয় ব্যাংকের কাছে থাকা ৩.২ বিলিয়ন ইউরো ঋণ পরিশোধের ক্ষমতা অর্জন করায় ঋণখেলাপি হওয়া থেকে রক্ষা পেয়েছে দেশটি। বেইলআউট চুক্তি অনুযায়ী ৩ বছরে মোট ৮৬ বিলিয়ন ইউরো পাবে গ্রিস। কিন্তু এই চুক্তির কারণে দেশটিতে যে ব্যয়সঙ্কোচন নীতি গ্রহণ করতে হয়েছে তাতেই নিজ দল থেকে বিরোধীতার মুখে পড়েছেন সাইপ্রাস। টেলিভিশণ ভাষণে সাইপ্রাস বলেছেন, ২৫ জানুয়ারির নির্বাচনে যে রাজনৈতিক রায় প্রতিফলিত হয়েছিল তার মেয়াদ শেষ হয়েছে। এখন গ্রিসের মানুষের জন্য সময় এসেছে তাদের নিজ মত প্রকাশ করার।তার সরকারের কার্যক্রমের বিষয়ে গ্রিসের সাধারণ মানুষের সমর্থন পাওয়ার চেষ্টা চালিয়ে যাওয়ারও ঘোষণা দিয়েছেন সাইপ্রাস।