Print

খুলনায় শ্রমিকদের রাজপথ-রেলপথ অবরোধ

বিডিনিউজডেস্ক ডেস্ক | ১১.০৪.২০১৬

বকেয়া পাওনাসহ ৫ দফা দাবিতে খুলনায় চলছে শ্রমিকদের রাজপথ-রেলপথ অবরোধ।

খুলনা জেলা প্রশাসনকে শ্রমিক নেতাদের দেওয়া ৩ দিনের আলটিমেটামে কোনো সমাধান না হওয়ায় অবশেষে মিল ধর্মঘটের পাশাপশি আজ সোমবার ভোর ৬টা থেকে লাগাতার রাজপথ-রেলপথ অবরোধ শুরু করেছেন শ্রমিকরা। একই সঙ্গে পাটকলে মিল ধর্মঘট অব্যাহত রয়েছে। নগরীর খালিশপুর নতুন রাস্তার মোড় ও আটরা গিলাতলা শিল্পাঞ্চল ও যশোরের রাজঘাটে রাষ্ট্রায়ত্ত জুট মিল সিবিএ-নন সিবিএ ঐক্য পরিষদের ব্যানারে এ কর্মসূচি পালন করছেন রাষ্ট্রায়ত্ত ৭ জুট মিল শ্রমিকরা।   মিলগুলো হচ্ছে : খুলনার খালিশপুরের প্লাটিনাম, ক্রিসেন্ট, দিঘলিয়ার স্টার জুটমিল, আটরা শিল্প এলাকার ইস্টার্ন ও আলিম জুট মিল, যশোর অভয়নগর রাজঘাট শিল্পাঞ্চলের যশোর জুট মিল ও কার্পেটিং জুট মিল। কর্মসূচি চলাকালে এসব এলাকার সড়কে ব্যাপক যানজট তৈরি হয়েছে। বন্ধ রয়েছে রেল যোগাযোগ। শ্রমিক নেতারা জানান, রবিবারের মধ্যে শ্রমিকদের দাবির বিষয়ে সুষ্ঠু কোনো সমাধান না হওয়ায় সোমবার থেকে প্রতিদিন সকাল ৬টা থেকে সন্ধ্যা ৬টা পর্যন্ত লাগাতার রাজপথ ও রেলপথ অবরোধ কর্মসূচি পালন করবেন তারা। এরই ধারাবাহিকতায় ভোর ৬টা থেকে রাজপথ-রেলপথ অবরোধ করেছেন শ্রমিকরা। পাট খাতে প্রয়োজনীয় অর্থ ছাড়, পে-কমিশনের ন্যায় অবিলম্বে রাষ্ট্রায়ত্ত শিল্পে শ্রমিকদের জন্য মজুরি কমিশন বোর্ড গঠন, ১ জুলাই ২০১৩ ঘোষিত ২০ শতাংশ মহার্ঘ্য ভাতা প্রদান ও খালিশপুর, দৌলতপুর, জাতীয়, কর্ণফুলী জুট মিলের শ্রমিকদের স্থায়ীকরণ ও সব পাওনা পরিশোধের দাবি আদায়ে খুলনাঞ্চলের রাষ্ট্রায়ত্ত সাত পাটকলে অনির্দিষ্টালের ধর্মঘট গত ৪ এপ্রিল থেকে শুরু হয়। সে থেকে এসব মিলের উৎপাদন বন্ধ রেখেছেন আন্দোলনে থাকা ৩৫ হাজার শ্রমিক।