আজ শুক্রবার, ১৮ আগস্ট, ২০১৭

সদ্য প্রাপ্তঃ

*** ধানমন্ডির ৩২ নম্বরে বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতিতে ফুল দিয়ে রাষ্ট্রপতি ও প্রধানমন্ত্রীর শ্রদ্ধা নিবেদন * শোকের দিনে খালেদা জিয়ার জন্মদিন পালন চলতে থাকলে বিএনপির সঙ্গে আলোচনা নয়: কাদের * মৌলভীবাজারের রাজনগরে যুদ্ধাপরাধ মামলার সাক্ষীর ওপর হামলার অভিযোগ * গাজীপুরের টঙ্গীর রাস্তায় দুইজনের লাশ; পুলিশের ধারণা, তারা গাড়িচাপায় নিহত হয়েছে * ঢাকার পান্থপথে একটি আবাসিক হোটেলে পুলিশের অভিযানে সন্দেহভাজন জঙ্গি নিহত * আত্মসমর্পণের আহ্বানে সাড়া না দিয়ে ওই ‘জঙ্গি’সুইসাইড ভেস্টে বিস্ফোরণ ঘটায়: পুলিশ * নিহত যুবক খুলনা বিএল কলেজের ছাত্র, বাড়ি ডুমুরিয়ায়; পুলিশ বলছে, সে নব্য জেএমবির সদস্য

Bangladesh Manobadhikar Foundation

Khan Air Travels

নাচোলে পুলিশের নজরদারি বাড়লেও থামছেনা গরু চুরি

বিডিনিউজডেস্ক ডেস্ক | তারিখঃ ০৭.০১.২০১৭

চাঁপাইনবাবগঞ্জের নাচোলে পুলিশের নজরদারি বাড়লেও থেমে নেই গরু চুরি।

প্রায় প্রতিদিনই উপজেলার কোনো না কোনো জায়গায় গরু চুরির ঘটনা ঘটতেই আছে। নাচোল থানার পুলিশ জানাচ্ছে, তারা গরু চোরদের ধরতে তৎপরতা বাড়িয়েছে। তারপরও কিছু চুরির ঘটনা ঘটছে। অচিরেই তা বন্ধ হবে বলে আশাবাদ ব্যক্ত করেছে তারা। এদিকে গরু চুরি বেড়ে যাওয়ায় আতঙ্কে দিন কাটাচ্ছেন এলাকাবাসী। তারা রাতের ঘুম হারাম করে গোয়ালঘর পাহারা দিচ্ছেন।

জানা গেছে, গত বুধবার রাতে নাচোল থানার সন্নিকটে চেয়ারম্যানপাড়ায় অবসরপ্রাপ্ত কলেজ শিক্ষক তামিজুল হকের গোয়ালঘর থেকে তালা ভেঙে ৩টি গরু চুরি করে নিয়ে যায় চোরেরা। মাত্র ১৫ দিনের ব্যবধানে নাচোল উপজেলার আজিপুর গ্রাম থেকে আজিজুর রহমানের ছেলে আব্দুল খালেকের ৫টি, ঝিকড়া গ্রাম থেকে সাইদুর রহমানের ৪টি, ভাতসা গ্রামের হাফিজুর রহমানের ছেলে সেকেন্দার আলীর ২টি গরু এবং বিশালপুর গ্রামের খাইরুল ইসলামের গোয়ালঘর থেকে সিদ কেটে ২টি গরু চুরির ঘটনা ঘটেছে। এছাড়া নাচোল উপজেলার সীমান্তবর্তী এলাকা নিয়মতপুর
উপজেলা ফুলহারা গ্রাম থেকে ও মির্জাপুর গ্রামের রেজাউল করিমের ৪টি গরু চুরির ঘটনা ঘটেছে।

ওইসব এলাকার সাধারণ মানুষ জানিয়েছে, প্রায় প্রতি রাতে চোরেরা মিনি ট্রাক, ভুটভুটি, নছিমন গাড়ি নিয়ে বিভিন্ন গ্রামে গোয়ালঘরের সিদ কেটে গরু চুরি করে দ্রুত দেশের বিভিন্ন জায়গায় চলে যাচ্ছে। সম্প্রতি ভুজইল, ঝিকড়া ও আজিপুর গ্রামে সিদ কেটে গরু চুরির করার সময় টের পেলে গ্রামবাসী হইচই শুরু করলে চোরেরা দ্রুত পিকআপ ভ্যান নিয়ে পালিয়ে যায়।গরু চুরির ঘটনার পর থেকে নাচোল থানা পুলিশ উপজেলার বিভিন্ন স্থানে টহল জোরদার করলেও গরু চুরি থামছে না। পুলিশের নজরদারির মধ্যেই চুরি হয়ে যাচ্ছে গরু। এ নিয়ে আতঙ্কে আছে নাচোল উপজেলাবাসী।এ বিষযে নাচোল থানার ওসি ফাছিরুদ্দীনের সাথে মোবাইলে যোগাযোগ করা হলে তিনি বলেন, পুলিশি তৎপরতা বৃদ্ধি করা হয়েছে, সেই সঙ্গে কয়েকজন তালিকাভুক্ত চোরকে আটক করার জন্য অভিযান অব্যাহত রয়েছে।