Print

‘মুই মার কাছোত যাইম’

বিডিনিউজডেস্ক ডেস্ক | তারিখঃ ২২.০৪.২০১৬

মুই মার কাছোত যাইম, মুই মার কাছোত যাইম, তোমরা মোক মার কাছোত নিয়্যা যান না কেনে।’

রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের হাসপাতালের ১৮ নম্বর ওয়ার্ডে বিছানায় শুয়ে এমন করুণ আতনার্দ করছিল বুধবার তারাগঞ্জে ভয়াবহ বাস দুর্ঘটনায় গুরুতর আহত ৭ম শ্রেণীর ছাত্র জাকারিয়া মাসুম।

জাকারিয়ার বড় ভাই মোজাহিদ মিয়া জানান, তাদের মা মনিজা বেগম বেশ কয়েকদিন ধরে রংপুরের একটি বেসরকারি হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছেন। বুধবার মাকে দেখতে তারাগঞ্জ থেকে বাস করে ছোট ভাই মাসুম ও বোন মনোয়ারাকে রংপুরে যাচ্ছিলেন। বাসটি কিছুদুর গিয়েই অন্য একটি বাসের সাথে মুখামুখি সংঘর্ষ হয়। এতে মাসুমের মাথা ফেটে যায়। ঘটনাস্থলেই জ্ঞান হারায় মাসুম। পরে তাকে তাকে রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।

হাসপাতালে গিয়ে দেখা যায়, জ্ঞান ফেরার পর থেকে মাসুম শুধু মায়ের কাছে নিয়ে যাওয়ার জন্য করুণ আতনার্দ করছিল। মোজাহিদ মিয়া জানান, মাসুম দুর্ঘটনার আহত হয়ে হাসপাতালে ভর্তির খবর এখনও তার মাকে দেওয়া হয়নি।

বুধবার রংপুরের তারাগঞ্জের ১৩ মাইল নামে পরিচিত এলাকায় কুমিল্লা থেকে দিনাজপুরগামী সায়মন পরিবহন ও সৈয়দপুর থেকে রংপুরগামী তৃপ্তি পরিবহনের মধ্যে মুখোমুখি সংঘর্ষ ঘটে। এতে ঘটনাস্থলে ৭ জন ও হাসপাতালে ৬ জন মারা যান। আহত হন অর্ধশতাধিক।