Print

ডিবির হাওর রক্ষায় রাস্তায় হাওরবাসী–পরিবেশবাদীরা

বিডিনিউজডেস্ক ডেস্ক | তারিখঃ ২৩.০৩.২০১৬

 

সিলেটের জৈন্তাপুর উপজেলার ডিবির হাওরে ‘স্টোন ক্র্যাশার জোন’ (পাথর ভাঙার কল অঞ্চল) স্থাপনের প্রতিবাদ জানিয়ে তা বাতিলের দাবি জানানো হয়েছে।

গতকাল মঙ্গলবার বিশ্ব পানি দিবসে মানববন্ধন করে এ দাবি জানান হাওর এলাকার বাসিন্দারা। তাঁদের সঙ্গে একাত্মতা প্রকাশ করেন পরিবেশবাদীরা।
গতকাল মঙ্গলবার বিকেলে সিলেট কেন্দ্রীয় শহীদ মিনারের সামনে এ মানববন্ধন করে আন্তর্জাতিক পরিবেশবাদী সংগঠন ওয়াটারকিপার অ্যালায়েন্সের ‘ওয়াটারকিপার বাংলাদেশ’ ও ‘সুরমা রিভার ওয়াটারকিপার’। প্রায় একই সময়ে পাশেই আলাদাভাবে বাংলাদেশ পরিবেশ আইনবিদ সমিতি (বেলা) মানববন্ধন করে। তাদের দাবি—হাওরে স্টোন ক্র্যাশার জোন করার আগে পরিবেশগত প্রভাব যাচাই করা হোক।
জৈন্তাপুরের ভারত সীমান্তবর্তী চারটি বিল নিয়ে ডিবির হাওর গঠিত। এই হাওরে স্টোন ক্র্যাশার জোন করতে প্রশাসন হাওর এলাকার ৯০০ একর জায়গার মধ্যে ৬২৫ একর জায়গার শ্রেণি পরিবর্তন করেছে।
ওয়াটারকিপার বাংলাদেশ ও সুরমা রিভার ওয়াটারকিপারের মানববন্ধনে ডিবির হাওর এলাকার বাসিন্দারা অংশ নেন। এ ছাড়া বাংলাদেশ পরিবেশ আন্দোলন (বাপা) সিলেটের সহসভাপতি এমাদ উল্লাহ শহিদুল ইসলাম, টিআইবির সচেতন নাগরিক কমিটির (সনাক) সভাপতি ইরফানুজ্জামান চৌধুরী প্রমুখ মানববন্ধনে একাত্মতা প্রকাশ করেন।
বেলার মানববন্ধনে ডিবির হাওর এলাকায় পাথর ভাঙার কল অঞ্চল স্থাপনের আগে পরিবেশগত প্রভাব যাচাই করে পরিবেশ উপযোগী স্থানে তা স্থাপনের দাবি জানানো হয়। বেলা সিলেটের সমন্বয়কারী শাহ শাহেদা জানান, যত্রতত্র পাথর ভাঙার কল অঞ্চলভুক্ত করার দাবি পরিবেশবাদীদেরও। তবে পরিবেশ রক্ষা করতে গিয়ে জল ও জীববৈচিত্র্য হুমকির মুখে ফেলা যাবে না।