Nabodhara Real Estate Ltd.

Khan Air Travels

Bangadesh Manobadhikar Foundation

বিনোদন ডেস্ক | তারিখঃ ১১.১০.২০১৮

বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা (ডাব্লিউএইচও) বলেছে, মদ্যপানের কারণে বিশ্বে বছরে মৃত্যু হয়েছে প্রায় ৩০ লাখ মানুষের। বিশ্বে প্রতি ২০ জনের মধ্যে একজনের মৃত্যু হচ্ছে মদ্যপানে।

সংস্থাটির গ্লোবাল স্ট্যাটাস রিপোর্ট অন অ্যালকোহল অ্যান্ড হেলথ (২০১৮) শুক্রবার প্রকাশিত হয়েছে। প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, শুধু ২০১৬ সালে মদ্যপানের কারণে মৃত্যুর সংখ্যা ক্যানসারসহ অন্যান্য সংক্রমক রোগের সম্মিলিত মৃতের সংখ্যার থেকে বেশি। মদ্যপানে মোট প্রায় ৩০ লাখ মানুষের মৃত্যু হয়েছে, এর মধ্যে অন্তত ৭৫ শতাংশই পুরুষ। বিশ্বে ২৩৭ মিলিয়ন পুরুষ এবং ৪৬ মিলিয়ন নারী মদ্যপান করে। ইউরোপ ও আমেরিকায় মদ্যপানের হার সবচেয়ে বেশি। ইউরোপে সবচেয়ে বেশি মানুষ মদ্যপান করে, যদিও ২০১০ সালের পর থেকে এই হার ১০ শতাংশ কমেছে।

শুধু মদ্যপানের কারণেই যে এত মানুষের মৃত্যু ঘটছে, তা নয়। অ্যালকোহলের প্রতিক্রিয়াতেও বহু মানুষের মৃত্যু হয়। তাদের মধ্যে ২৮ শতাংশ মানুষ মারা গেছে দুর্ঘটনাজনিত কারণে। ২১ শতাংশ মানুষ মারা গেছে নিজেদের মধ্য সংঘর্ষ বা নিজেকে নিজে আঘাত করে। ১৯ শতাংশ মানুষ মারা গেছে হজমের সমস্যাজনিত কারণে। বাকিরা মৃত্যুবরণ করেছে মদ্যপানের ফলে হওয়া শারীরিক ও মানসিক রোগের জন্য হয়েছে। বিশ্বে এমন ২৩ কোটি ৭০ লাখ মানুষ আছেন যারা জানেন না, তাদের কী পরিমাণ মদ্যপান করাটা নিরাপদ। মদ্যপানের অন্যতম ঝুঁকি অল্পবয়সীদের ক্ষেত্রে। ডাব্লিউএইচও জানিয়েছে, বিশ্বের ১৫ থেকে ১৯ বছর বয়সী ছেলেমেয়ে এবং সদ্য প্রাপ্তবয়স্কদের কমপক্ষে এক-চতুর্থাংশ মদ্যপানে অভ্যস্ত হয়ে উঠছে। যারা মদ্যপান করে তারা গড়ে প্রতিদিন দুই গ্লাস ওয়াইন, বড় এক বোতল বিয়ার অথবা ছোট দুই গ্লাস কড়া মদ পান করে থাকে। বিশ্বে বর্তমানে মদ্যপায়ীর সংখ্যা ২৩০ কোটি। ডাব্লিউএইচও বলেছে, চলতি প্রবণতা ও পূবাভাস এটিই নির্দেশ করছে যে আগামী দশকে বিশ্বে বিশেষ করে দক্ষিণপূর্ব এশিয়া ও আমেরিকায় মদ্যপায়ীর সংখ্যা বৃদ্ধি পাবে।